খেলাধুলা

ওয়ালটন’র সৌজন্যে পুমসে তায়কোয়ান্ডো প্রতিযোগিতা ৩ সেপ্টেম্বর শুরু

দেশের স্বনামধন্য শিল্প প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় ও বাংলাদেশ তায়কোয়ান্ডো ফেডারেশনের আয়োজনে যথাযথভাবে সামাজিক দূরত্ব মেনে ৩ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হতে যাচ্ছে ‘ওয়ালটন রেফ্রিজারেটর আন্তঃজেলা পুমসে তায়কোয়ান্ডো প্রতিযোগিতা-২০২০’। যেখানে ১৪ জেলার খেলোয়াড়রা অংশ নিবেন। জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের জিমনেসিয়ামে তিনদিন ব্যাপী এই প্রতিযোগিতা চলবে ৫ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত।

প্রতিযোগিতার বিষয়ে বিস্তারিত জানানোর জন্য আজ শনিবার (২২ আগস্ট) বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামের সভাকক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন ওয়ালটন গ্রুপের নির্বাহী পরিচালক (গেমস অ্যান্ড স্পোর্টস মার্কেটিং) এফএম ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন), বাংলাদেশ তায়কোয়ান্ডো ফেডারেশনের সভাপতি কাজী মোর্শেদ হোসেন কামাল ও সাধারণ সম্পাদক মাহমুদুল ইসলাম রানাসহ অন্যান্যরা।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয় এবারের এই প্রতিযোগিতার ইভেন্ট একটি (পুমসে)। তবে ক্যাটাগোরি ১২টি। এই ১২টি ক্যাটাগোরিতে ১৪টি জেলার মোট ২০০ জন খেলোয়াড় অংশ নিবে। তার মধ্যে পুরুষ বিভাগে ১২৫ জন ও মহিলা বিভাগে ৭৫ জন। আর অংশ নিতে যাওয়া প্রাথমিক জেলাগুলো হল- চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, বান্দরবান, সিলেট, গাজীপুর, কুমিল্লা, খাগড়ছড়ি, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, সিরাজগঞ্জ, রাজশাহী, নাটোর, বগুড়া, নরসিংদী ও নারায়ণগঞ্জ।

প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের মেডেল ও ট্রফি দেওয়া হবে। আর ১২টি ক্যাটাগোরিতে স্বর্ণজয়ীদের ওয়ালটন গ্রুপের পক্ষ থেকে হোম অ্যাপ্লায়েন্স দিয়ে উৎসাহিত করা হবে।

সংবাদ সম্মেলনে ওয়ালটন গ্রুপের নির্বাহী পরিচালক এফএম ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন) বলেন, ‘অবশেষে ক্রীড়াঙ্গন সচল হচ্ছে, এটা একটা ভালো দিক। তাই ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের দেওয়া শর্তসমূহ ও সামাজিক দূরত্ব মেনে আয়োজন করা যায় এমন প্রতিযোগিতার সঙ্গে আমরা ওয়ালটন পরিবারও সম্পৃক্ত হচ্ছি।

বাসায় থাকতে থাকতে খেলোয়াড়দের মধ্যেও একঘেয়েমি চলে এসেছে।তাদের ইমিউনিটি বাড়ানোর জন্যও খেলাধুলা আয়োজন করা দরকার। সে কারণেই বরাবরের মতো তায়কোয়ান্ডো প্রতিযোগিতার সঙ্গে সম্পৃক্ত হয়েছি। প্রতিযোগিতার ১২টি ক্যাটাগোরিতে যারা যারা স্বর্ণ জিতবেন তাদের সবাইকে ওয়ালটন গ্রুপের পক্ষ থেকে হোম অ্যাপ্লায়েন্স দিয়ে উৎসাহিত করা হবে।’

ওয়ালটনকে ধন্যবাদ জানিয়ে কাজী মোর্শেদ কামাল বলেন, ‘মহামারি করোনাভাইরাসের কারণে গোটা ক্রীড়াঙ্গন স্থবির হয়ে ছিল। ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের নিয়ম ও শর্তগুলো মেনে অবশেষে আমরা আবার প্রতিযোগিতা আয়োজন করতে যাচ্ছি। এই আয়োজনের সঙ্গে ওয়ালটন গ্রুপ যুক্ত হওয়ায় তাদের ধন্যবাদ জানাচ্ছি।’

মাহমুদুল ইসলাম রানা বলেন, ‘সামাজিক দূরত্ব মেনে খেলা যায় তায়কোয়ান্ডোর পুমসে ইভেন্ট। ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের দেওয়া শর্তগুলো শতভাগ মেনেই আমরা এটা আয়োজন করতে যাচ্ছি। এটা একটা একক প্রতিযোগিতা। এই প্রতিযোগিতায় আমরা কোনো দর্শক কিংবা কারো সঙ্গে কোনো গেস্ট আসতে দিবো না। এই প্রতিযোগিতার সহযোগিতায় থাকবে ওয়ালটন গ্রুপের জনপ্রিয় ব্র্যান্ড মার্সেল। মিডিয়া পার্টনার এটিএন বাংলা ও এটিএন নিউজ। রেডিও পার্টনার রেডিও টুডে। আর অনলাইন পার্টনার দেশের জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল রাইজিংবিডি ডটকম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *