রাজশাহী সারাদেশে

মুজিববর্ষে পাবনায় নব নির্বাচিত পৌর মেয়রকে সংবর্ধনা দিলেন জেলার বীর মুক্তিযোদ্ধাগণ

নিজস্ব প্রতিনিধি : মুজিবশতবর্ষ ও স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উপলক্ষে পাবনা পৌরসভার নব নির্বাচিত পৌর মেয়র শরীফ উদ্দিন প্রধানকে সংর্বধনা দিলেন জেলার বীর মুক্তিযোদ্ধাগণ। বুধবার (১০ মার্চ) দুপুরে বীর মুক্তিযোদ্ধা রফিকুল ইসলাম বকুল পৌর মুক্তমঞ্চে (টাউনহল ময়দান) পাবনা জেলার বীর মুক্তিযোদ্ধাগণ এ সংবর্ধনা দেন।

জাতীয় পতাকা উত্তোলন এবং জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশনের মধ্যদিয়ে সংবর্ধনা অনুষ্ঠান শুরু করা হয়। আমন্ত্রিত অতিথিদের আসন গ্রহনের পরে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করা হয়। পরে মহান মুক্তিযুদ্ধে শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি সম্মান প্রর্দশন করে দাড়িয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন ও সকল শহীদের আত্মার মাগফেরাত কামনায় দোয়া করা হয়। পরে অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি ও বিশেষ অতিথিদের ফুল ও শুভেচ্ছা স্বারক ক্রেস্ট দিয়ে বরণ করেন বীর মুক্তিযোদ্ধাগণ।
এ সময় বীর মুক্তিযোদ্ধাদের পক্ষে পৌর মেয়রের কাছে ৯ দফা দাবী তুলে ধরা হয়। দাবী সমূহের মধ্যে রয়েছে পাবনা পৌরসভার অন্তগত সকল মুক্তিযোদ্ধাদের পৌর কর মওকুফ করা, গত বছর ও চলতি বছরে যে সকল সড়কের নাম মুক্তিযোদ্ধাদের নামে করা হয়েছে তদন্তপূর্বক বিবেচনা করা, সকল উন্নয়ন কাজে মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতিনিধি রাখা, মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য একটি সেল গঠন করা, সরকারি ও পৌরসভা কর্তৃক সকল অনুদানের মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি বিশেষ নজর রাখা, স্বাধীনতা চত্বররের ইংরেজী নাম ফলক মুছে বীর মুক্তিযোদ্ধা রফিকুল ইসলাম বকুল “স্বাধীনতা চত্বর” নাম দাপ্তরিক ভাবে ব্যবহার করা, জনস্বার্থে টাউনহল চত্বরকে উন্মুক্ত রাখা, স্বাধীনতা চত্বরে স্থাপিত বঙ্গবন্ধুর মুর‌্যালে ভুলে ভরা এবং নিন্মমানের কাজ হওয়ায় সেটি অপসারন করে মানসম্মত সঠিক জায়গায় স্থাপন করা, পৌরসভায় ওয়ার্ড ভিত্তিক বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নামের তালিকা সংরক্ষণ করার দাবী জানানো হয়।

সাবেক সংসদ সদস্য ও সেক্টর কমান্ডারস্ ফোরাম-মুক্তিয্দ্ধু’৭১ পাবনা জেলা শাখার সিনিয়র সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মকবুল হোসেন সন্টু সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. মমিনুর রহমান বরুণ এর সঞ্চালনায় প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মোশারফ হোসেন। বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন পাবনা পৌর মেয়র শরীফ উদ্দিন প্রধান, জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল কালাম আজাদ, সেক্টর কমান্ডারস্ ফোরাম-মুক্তিয্দ্ধু’৭১ কেন্দ্রীয় নির্বাহী সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা আ.স.ম. আব্দুর রহিম পাকন, বীর মুক্তিযোদ্ধা আলী জব্বার, সাংস্কৃতিক ব্যাক্তিত্ব কমরেড জাকির হোসেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা সিদ্দিকুর রহমান সিদ্দিক, বীর মুক্তিযোদ্ধা আতিউর রহমান সাচ্চু, বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু জাফর, বীর মুক্তিযোদ্ধা আজিজুর রহমান টিংকু, বীর মুক্তিযোদ্ধা জহুরুল ইসলাম প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে পৌর মেয়র জেলার বীর মুক্তিযোদ্ধাদের দাবীর প্রতি সম্মান জানিয়ে, সকল দাবী দাওয়ার বিষয়ে পৌরসভার দায়িত্বরত সকলের সাথে পরামর্শপূর্বক সিদ্ধান্ত গ্রহনের আশ^াস প্রদান করেন। তিনি বলেন, আপনারা জাতীর শ্রেষ্ঠ সন্তান। আপনাদের জন্যই আজ স্বাধীন বাংলাদেশ। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান স্বাধীনতার মহানায়ক। জননেত্রী শেখ হাসিনা এই বাংলাদেশর সফল প্রধানমন্ত্রী। তিনি দেশের উন্নয়নের জন্য কাজ করে যাচ্ছেন। আমরা তার উন্নয়নের বার্তা মানুষের কাছে পৌছে দেবার লক্ষে জনসেবার পথ বেছে নিয়েছি। আপনাদের দিকনির্দেশনায় চলবে পাবনা পৌরসভা। এই পৌর এলাকায় সকল দখলকৃত স্থাপনা ও অবকাঠামো ধীরে ধীরে অবৈধ দখল মুক্ত করে পাবনাকে আধুনিক মডেল পৌরসভা হিসাবে গড়ে তোলা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *